রাবির ‘গ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় সর্বোচ্চ নম্বর পেয়েছেন গোমস্তাপুরের মিটুল

54

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষার ‘গ’ ইউনিটের প্রকাশিত ফলাফলে সর্বোচ্চ নম্বর পেয়ে প্রথম স্থান অর্জন করেছেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার গোমস্তাপুর উপজেলার নয়াদিয়াড়ী নামোটোলা গ্রামের মিটুল আলী।

গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে ‘গ’ ইউনিটের ভর্তির পরীক্ষার সমন্বয়ক এবং বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক মো. সাহেদ জামান ২৩ হাজার ৯৯৫ জন ভর্তিচ্ছু মনোনীত করে এ ফল প্রকাশ করেন। এতে সর্বোচ্চ নম্বর ৯২.৭৫ পেয়ে প্রথম হন মিটুল।

ভর্তি পরীক্ষায় সাফল্যের বিষয়ে মিটুল বলেন, প্রতিনিয়ত জীবনের সঙ্গে যুদ্ধ করে পড়ালেখা করেছি। ইচ্ছে ছিল বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ালেখা করার। এই ইচ্ছে আমার পূরণ হয়েছে। এতে আমি খুব আনন্দিত। এ আনন্দের কথা ভাষায় প্রকাশ করার মতো না। তবে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হবেন না তিনি। ভর্তি হবেন শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজে।

এবিষয়ে তিনি রেডিও মহানন্দাকে জানান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় ১০৩০তম, বুয়েটে-১৪৮৪তম ও শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজে ভর্তির সুযোগ পেয়েছি। মেডিকেলে ভর্তি হয়ে ভবিষ্যৎ এ চিকিৎসক হতে পারবেন এই আশায় শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজে ভর্তির জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান তিনি।

মিটুলের বাবা আব্দুল করিম বলেন, আমার ছেলেটা ছোট থেকেই খুব মেধাবী। তাকে লেখাপড়ার জন্য কখনো বলতে হয়নি। আমার চার ছেলে ও এক মেয়ে। তার মধ্যে মিটুল তৃতীয়।

নয়াদিয়াড়ী হাজী ইয়াকুব আলী মন্ডল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শাজাহান আলী জানান, মিটুল ছোট থেকে ভালো ছাত্র ছিল। তার পরিবারের লোকজনও বলতো বাড়িতে সব সময় লেখাপড়া করে মিটুল।

২০১৯ সালে গোমস্তাপুর নয়াদিয়াড়ী হাজী ইয়াকুব আলী মন্ডল উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এইচএসসি ও ২০২১ সালে নিউ গভ: ডিগ্রী কলেজ থেকে জিপিএ ৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছিল মিটুল।

উল্লেখ্য: রেডিও মহানন্দার একজন নিয়মিত শ্রোতা মিটুল আলী। তিনি বিভিন্ন সময়ে রেডিও মহানন্দায় সম্প্রচারিত অনুষ্ঠান সমূহের কুইজ পর্বে অংশ নিয়ে একাধিকবার বিজয়ী হন।