‘ডাবল’ রেকর্ড সাকিবের

349

অলরাউন্ড নৈপুণ্যে আরেকটি রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন সাকিব আল হাসান। র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ এই অলরাউন্ডারের চেয়ে ওয়ানডে ইতিহাসে কম ম্যাচে ৫ হাজার আর দুইশ উইকেটের ডাবলে পৌঁছতে পারেনি আর কেউ।
ওয়ানডেতে দ্রুততম ৪ হাজার রান আর দুইশ উইকেটের মাইলফলকে পৌঁছার রেকর্ড সাকিবেরই। ২০১৫ সালে চট্টগ্রামে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজের শেষ ম্যাচে দুইশ উইকেটে পৌঁছে রেকর্ড গড়েছিলেন বাঁহাতি এই অলরাউন্ডার।
সেই দলের বিপক্ষেই রোববার কিম্বার্লিতে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে গড়লেন আরেকটি ডাবলের রেকর্ড। ৫ হাজার রানে যেতে সাকিবের দরকার ছিল ১৭ রান। ২০তম ওভারে ডোয়াইন প্রিটোরিয়াসের বলে এক রান নিয়ে সেই মাইলফলকে পৌঁছে যান তিনি।
দুইশ উইকেট ছাড়িয়েছেন সাকিব বেশ আগেই। ওয়ানডেতে ৫ হাজার রান ও ২০০ উইকেটের ‘ডাবল’ সবচেয়ে কম ম্যাচে ছুঁতে লাগল মাত্র ১৭৮ ম্যাচ।
দুইশ ম্যাচের নিচে এই ডাবলের কৃতিত্ব নেই আর কারোর। দক্ষিণ আফ্রিকার জ্যাক ক্যালিসের লেগেছিল ২২১ ম্যাচ। শ্রীলঙ্কার জয়াসুরিয়ার লেগেছে ২৩৫ ম্যাচ। পাকিস্তানের শহিদ আফ্রিদি ২৩৯ ও আবদুল রাজ্জাক ২৫৮ ম্যাচে এই ডাবলে পৌঁছান।
তামিম ইকবালের পর বাংলাদেশের দ্বিতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে সাকিব ছুঁলেন পাঁচ হাজার ওয়ানডে রান।