গোমস্তাপুরে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে দু’জনের মৃত্যু

76

গোমস্তাপুরে পৃথক দু’টি স্থানে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। নিহত একজন অটোরিকশার ব্যাটারি একটি দোকানে চার্জ থেকে খোলার সময় অপরজন বাড়িতে বিদ্যুৎ লাইনে কাজ করার সময় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মারা যায়। গতকাল সন্ধ্যায় দেওপুরা মোড়ে ও আজ সকালে লেবুডাঙ্গা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত একজন পার্বতীপুর ইউনিয়নের দান্দিপুর গ্রামের বাসিন্দা শাহাবুদ্দিনের ছেলে ফারুক হোসেন ও অপরজন রাধানগর ইউনিয়নের লেবুডাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা একরামুলের ছেলে আপন। পরিবার ও স্থানীয়রা জানায়, আজ সকালে লেবুডাঙ্গা গ্রামে আপন নিজ বাড়িতে বিদ্যুতের কাজ করছিলেন। হঠাৎ বৈদ্যুতিক শট লেগে বিদ্যুৎপৃষ্ট হয়। পরে পরিবার ও স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিস স্টেশনে খবর দেন। খবর পেয়ে দ্রুত ফায়ারসার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে এসে আপনকে উদ্ধার করে গোমস্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। অপর নিহত ফারুক হোসেন গতকাল সন্ধ্যার দিকে দেওপুরা মোড় এলাকায় একটি ইলেকট্রনিক দোকানে অটোরিকশার ব্যাটারী চার্জ থেকে খোলার সময় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হন। পরে তাঁকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি বেসরকারি ক্লিনিকে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ফারুককে মৃত ঘোষণা করেন। এসময় ওই দোকানের মালিক ফিরোজ তাঁকে উদ্ধার করতে এসে আহত হয়। পার্বতীপুর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মোয়াজ্জেম হোসেন ও রাধানগর ইউপি চেয়ারম্যান মতিউর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। এবিষয়ে গোমস্তাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলীপ কুমার দাস বলেন, পুলিশ দুইজনের মৃতদেহ উদ্ধার করে প্রাথমিক সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি করেছে। পরে উভয় পরিবারের কাছে মৃতদেহ হস্তান্তর করা হয়। এ ঘটনায় গোমস্তাপুর থানায় পৃথক দু’টি অপমৃত্যুর (ইউডি) মামলা দায়ের করা হয়েছে।