অতিরিক্ত ঘাম কি কি রোগের লক্ষ্মণ জানেন?

392

গরম আবহাওয়ার মধ্যে বা পরিবেশের মধ্যে যে যাবে তখনই ঘাম হবে, এটাই স্বাভাবিক। ঘাম হওয়া শরীরের একটি স্বাভাবিক প্রক্রিয়া। ঘাম না হওয়া কখনো কখনো বড় ধরনের অসুস্থতার কারণ হতে পারে। কিন্তু অনেকেরই আবার স্বাভাবিকের থেকে অতিরিক্ত ঘাম দেখা যায়। এই অতিরিক্ত ঘামও সমস্যা তৈরি করে।
বিশেষজ্ঞদের মতে, যাঁরা অতিরিক্ত ঘামেন তাদের শরীরের বিশেষ অবস্থার লক্ষ্মণ প্রকাশ পেতে পারে এর মাধ্যমে।
চলুন তা জেনে নেই, অতিরিক্ত ঘামে কি কি রোগের লক্ষ্মণ হতে পারে-

হার্ট অ্যাটাক:
হঠাৎ করে যদি কেউ স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি ঘামতে থাকেন। তা হলে তার কার্ডিয়াক সমস্যার কথা বিবেচনায় আনতে হবে। এ অবস্থায় কোনো ভাবেই অবহেলা না করে জরুরি ভিত্তিতে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের দ্বারস্থ হতে হবে। এরপর পাশাপাশি ধূমপানের অভ্যাস, উচ্চ রক্তচাপ ও পরিবারে কারো হৃদরোগের ইতিহাস থাকলে তো কোনো কথাই নেই। এ ক্ষেত্রে যত দ্রুত সম্ভব চিকিৎসকের দ্বারস্থ হতে হবে।

ডায়াবেটিস:
ঘামের মাধ্যমে ডায়াবেটিস রোগে আক্রান্ত হওয়ার লক্ষ্মণ প্রকাশ পেতে পারে। তবে ইনসুলিন উৎপাদনে সমস্যা এবং রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে ঝামেলা হলেও অনেক এমনটি দেখা যায়। এছাড়াও গর্ভাবস্থা এবং অন্য কোনো বিশেষ অবস্থার কারণেও ডায়াবেটিস রোগ দেখা দিতে পারে।
অতিরিক্ত ঘামা রক্তে নিম্নমাত্রার গ্লুকোজের লক্ষ্মণ প্রকাশ করতে পারে বলেও অনেক বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন। এতে করেও দেহে নানা ধরনের সমস্যা দেখা দেয়।
যে কোনো শারীরিক অসুবিধাতে সবাই ঘামতে পারেন। তবে অবশ্যই তা স্বাভাবিক হতে হবে। মনে রাখবেন এমনটি হলে যত দ্রুত সম্ভব চিকিৎসকের কাছে যেতে ভুলবেন না। নিজের স্বাস্থ্যের প্রতি সবারই খেয়াল রাখা উচিত। কেননা, স্বাস্থ্যই সকল সুখের মূল।